স্ত্রীর সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদ, দুই বছর পর ছেলেকে দেখে আবেগাপ্লুত ধাওয়ান

ভারতের তারকা ওপেনার শিখর ধাওয়ানের ব্যক্তিগত জীবনে ঝড় চলছে। মাস পাঁচেক আগে স্ত্রীর সঙ্গে বিচ্ছেদ হয়ে গেছে। তারও আগে থেকে একমাত্র সন্তানের সঙ্গে দেখা করতে পারছিলেন না। শনিবার বহু প্রতীক্ষার পর ছেলে জোরাভরের সঙ্গে দেখা হয় শিখরের।

সেই সময় পিতৃত্বের আবেগ তিনি আর ধরে রাখতে পারেননি।
শিখর নিজেই তার ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে ছেলের সঙ্গে সাক্ষাতের ভিডিও শেয়ার করেন। তিনি ছেলের সঙ্গে দেখা করতে অস্ট্রেলিয়া উড়ে গেছেন। তবে ধাওয়ান এত দিন ধরে কেন ছেলের সঙ্গে দেখা করতে পারেননি, সে ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি। অস্ট্রেলিয়ার কঠোর করোনাবিধির কারণে এটা হতে পারে। তার সাবেক স্ত্রী এবং ছেলে বর্তমানে অস্ট্রেলিয়ায় থাকেন। করোনার কারণে শিখরের পক্ষে বারবার অস্ট্রেলিয়ায় যাওয়া খুব একটা সহজ হচ্ছে না।

গত বছর সেপ্টেম্বর মাসে শিখর ধাওয়ান এবং আয়েশার মধ্যে ডিভোর্স হয়। প্রায় আট বছরের বিবাহিত জীবনের পর তারা আলাদা হওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। ২০১২ সালে মেলবোর্নের পেশাদার বক্সার আয়েশাকে বিয়ে করেছিলেন শিখর। যদিও ইতিপূর্বে আয়েশার একবার বিয়ে হয়েছিল এবং সেই ঘরে তার দুই বছরের এক কন্যাসন্তানও আছে। ভারতীয় ক্রিকেট দলের এই ওপেনার অবশ্য তাতে কোনো আপত্তি প্রকাশ করেননি। ওই কন্যাসন্তানকে নিয়েই তারা নতুন করে সংসার পাতেন। কিন্তু সেটাও টিকল না।

Education Template

AllEscort